<< জো বাইডেনের পদত্যাগ দাবি করলেন ট্রাম্প

মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের মধ্যে দিয়ে আফগানিস্তান দখল করেছে সশস্ত্র বিদ্রোহী গোষ্ঠী তালেবান। এ ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের পদত্যাগ দাবি করেছেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি বলেন, জো বাইডেন আফগানিস্তানে যা ঘটতে দিয়েছেন তার জন্য লজ্জায় তার পদত্যাগ করা উচিত। খবর এনডিটিভির

এক বিবৃতিতে রোববার ট্রাম্প অভিযোগ করেন, বাইডেনের কারণে মার্কিন বাহিনীকে ২০ বছর পর শুন্য হাতে আফগানিস্তান ছাড়তে হয়েছে। তিনি ক্ষমতায় থাকলে দেশটি থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার আরও ভিন্নভাবে এবং আরও সফলতার সঙ্গে হতো।

ট্রাম্পের আমলে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছিল। সেনা প্রত্যাহার করতে সেই সময়েই আফগান তালেবানের সঙ্গে চুক্তি সই হয়। তবে বাইডেন ক্ষমতায় এসে আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার পুরোপুরি শেষ করার সময়সীমা নির্ধারণ করেন। শুরু হয় প্রত্যাহার কার্যক্রম। আর তখন থেকেই তালেবান যোদ্ধারা আফগানিস্তানের বিভিন্ন এলাকার নিয়ন্ত্রণ নিতে শুরু করে।

এ ধারাবাহিকতায় গতকাল রোববার কাবুলে প্রবেশ করে তালেবান যোদ্ধারা। এসময় আফগান প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনি দেশ ছেড়ে তাজিকিস্তানের উদ্দেশে রওনা হন। এর পরপরই আফগানিস্তানের প্রেসিডেনশিয়াল প্যালেসের নিয়ন্ত্রণ নেয়ার দাবি করে তালেবান বাহিনী।

দেশত্যাগ করা প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনি আত্মপক্ষ সমর্থন করে রোববার (১৫ আগস্ট) সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে দেয়া এক পোস্টে বলেছেন, রক্তপাত এড়াতে তিনি দেশ ছেড়েছেন তার হাতে আর কোনো বিকল্প ছিল না।

তিনি আরও বলেন, তালেবানরা জিতেছে তাই সম্পদ, সম্মান এবং নিজ দেশের জনগণকে রক্ষার দায়িত্ব এখন তাদের। এ ছাড়া তিনি সংঘাত এড়ানোর জন্য কাবুল ছেড়েছেন কারণ, সেখানে লাখ লাখ মানুষ ঝঁকির মধ্যে রয়েছে।

এদিকে, আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলসহ প্রায় সব প্রদেশ দখল করে নেয়ার পর অন্তর্বর্তীকালীন সরকার গঠন নিয়ে আলোচনা-পর্যালোচনা চালাচ্ছে তালেবানরা। এরইমধ্যে অন্তর্বর্তী সরকারের প্রধান হিসেবে দেশটির সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আলী আহমাদ জিলালির নাম উঠেছে।

শেয়ার করলে অনুপ্রাণিত হবো...

Leave a Reply

Your email address will not be published.