<< ‘রহস্যজনক জ্বরে’ ভারতে শিশুসহ ৫০ জনের মৃত্যু

ভারতে ‘রহস্যজনক জ্বরে’ গত এক সপ্তাহে শিশুসহ কমপক্ষে ৫০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে দেশটির উত্তরপ্রদেশের বেশ কিছু জেলায় বহু শিশুর সকালে ঘুম ভাঙছে তীব্র জ্বর নিয়ে। এছাড়া শরীর ঘামে ভিজে যাচ্ছে। অনেকেরই শরীরে ব্যথা, মাথাব্যথা, পানিশূন্যতা এবং বমি বমি ভাব দেখা দিয়েছে বলে জানা গেছে। অনেকেই আবার বলছেন, তাদের হাত এবং পায়ে র্যাশ দিয়ে ভরে যাচ্ছে।

রাজ্যের পূর্বাঞ্চলের ছয়টি জেলায় কমপক্ষে ৫০ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে, যার বেশিরভাগই শিশু। এদের সবাই জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। এসব জেলায় আরও বহু মানুষ রহস্যজনক এই জ্বরে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। যারা মারা গেছেন তাদের কারও দেহেই করোনার উপস্থিতি পাওয়া যায়নি।

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করছে ভারত। দেশের করোনার পরিস্থিতি এখন অনেকটাই স্বাভাবিক বলা যায়। কিন্তু এর মধ্যেই দেশটির জনসংখ্যাবহুল উত্তরপ্রদেশে রহস্যজনক জ্বরে মানুষের মৃত্যু বাড়তে থাকায় নতুন করে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।

আগ্রা, মথুরা, মেনপুরি, ইতাহ, কাসগঞ্জ এবং ফিরোজাবাদের অনেক চিকিৎসক মনে করছেন এটা ডেঙ্গু জ্বর। কিন্তু যারা মারা গেছেন তারা ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছিলেন কীনা সেটাও এখনও পরিষ্কার নয়।

বেশ কয়েকজন চিকিৎসক জানিয়েছেন, তাদের হাসপাতালে আনা হয়েছে এমন বেশ কয়েকজন রোগীর প্লাটিলেট অনেক কম ছিল। সাধারণত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত রোগীদের প্লাটিলেট স্বাভাবিকের চেয়ে কিছুটা কমে যায়। এ থেকেই তাদের মনে হয়েছে অনেক রোগী হয়তো ডেঙ্গুর কারণেই মারা যাচ্ছেন।

ফিরোজাবাদ জেলার ঊর্ধ্বতন স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. নিতা কুলশ্রেষ্ঠা বলেন, অনেক রোগী, বিশেষ করে শিশুরা অল্প সময়ের মধ্যেই মারা যাচ্ছে। গত এক সপ্তাহে ওই জেলায় ৩২ শিশুসহ ৪০ জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে এটা এখনও স্পষ্ট নয় যে, উত্তরপ্রদেশে এসব জ্বরজনিত মৃত্যুর জন্য ডেঙ্গুই দায়ী কীনা।

শেয়ার করলে অনুপ্রাণিত হবো...

Leave a Reply

Your email address will not be published.